কুকিজ কি? কিভাবে ব্যাবহার করবেন?

হ্যালো বন্ধুরা কি অবস্থা সবার ? আশা করি সবাই ঠিকঠাক । আমিও ঠিকঠাক । আচ্ছা আপনি কি জানেন কুকিজ কি? বা কিভাবে আপনি চাইলে অন্যের কুকিজ ব্যাবহার করতে পারেন কিংবা আপনার ব্রাউজারে কুকিজ কিভাবে ব্যাবহার করতে হয় এসব নিয়ে আজকের লেখায় তুলে ধরার চেষ্টা করবো। আপনি যদি এই বিষয়ে আগ্রহী হয়ে থাকেন তাহলে আজকের লেখাটি চালিয়ে যান । আশা করি পুরা বিষয়টা ক্লিয়ার হয়ে যাবে । তো চলুন শুরু করা যাক –

কুকিজ কি?

প্রথমেই আমরা এক কথায় কুকিজ কি জানার ট্রাই করি। ক্যাশ বা কুকিজ হচ্ছে এমন কিছু ফাইল যেগুলা আমাদের ডিভাইসে জমতে থাকে। এবং আমাদের ডাটাগুলা দ্রুত লোড নিতে সাহায্য করে। যেমন আমাদের লগইন ডিটেইলস কুকিজ ফাইলে সেভ হলে আমাদের সেইম একাউন্ট বার বার আর লগইন করা লাগেনা। এছাড়া কোন পেইজের কুকিজ আগে থেকে থাকলে সে পেইজ লোড নিতে টাইম কম লাগে। এছাড়া অনেক সুবিধা অসুবিধা আছে কুকিজের। চলুন দেখে আসা যাক কিভাবে আপনি চাইলে কোন পেইজের কুকি কিভাবে এডিট করতে পারেন।

কিভাবে কুকি এডিট এবং ব্যাবহার করবেন?

কুকিজ ইডিট করার জন্য বা অন্য কোন কুকিজ ইনপুট করার জন্য আমাদের প্রয়োজন হবে একটি কুকি এডিটর। এই লিংক থেকে আপনি চাইলে এই কুকি এডিটর ইন্সটল করে নিতে পারেন। নিচের এমন একটি ইন্টারফেইস শো হবে। Add to chrome করে আপনার ব্রাউজারে কুকি এডিটর টি ইন্সটল করে নিন।

Cookie editor

এবার আপনার কুকি ইডিটর টা চাইলে আপনি নিচের মতো করে আপনার ব্রাউজারে পিন করে নিতে পারেন।

cookie editor

ব্যাস আপনার কুকিজ এডিটর ইন্সটল করা শেষ । এবার আপনি চাইলে যে কোন পেইজের কুকি এডিট করতে পারবেন। চলুন আরো কিছুটা স্যাম্পল দেখা যাক কিভাবে করতে হবে।

দেখুন আমি নিচে Grammarly.com পেইজের কুকি এডিট অপশন দেখিয়েছি। আপনি চাইলে নিচের মতো করে সব কুকি ডিলিট করে দিতে পারেন। অথবা বাইরে থেকে কুকি ইনপুট করতে ও পারেন।

cookie editor tutorial
cookie editor tutorial

আপনি চাইলে ঠিক এভাবে যে কন পেইজের কুকিজ ডিলিট করতে পারেন আপনার ব্রাউজার থেকে। আবার চাইলে কুকিজ ইনপুট ও করতে পারেন এমনকি আপনি আপনার পেইজের কুকিজ এক্সপোর্ট ও করতে পারবেন। আশা করি বুঝতে পেরেছেন কিভাবে কুকি এডিটর দিয়ে কোন পেইজের কুকি কিভাবে এডিট করতে হয়। ডিলিট কিংবা এক্সপোর্ট, ইম্পোরট করতে হয়।

কুকি বা কুকিজ কি?

ক্যাশ বা কুকিজ হচ্ছে এমন কিছু ফাইল যেগুলা আমাদের ডিভাইসে জমতে থাকে। এবং আমাদের ডাটাগুলা দ্রুত লোড নিতে সাহায্য করে। যেমন আমাদের লগইন ডিটেইলস কুকিজ ফাইলে সেভ হলে আমাদের সেইম একাউন্ট বার বার আর লগইন করা লাগেনা। এছাড়া কোন পেইজের কুকিজ আগে থেকে থাকলে সে পেইজ লোড নিতে টাইম কম লাগে।

কুকি ব্যাবহার করা কি নিরাপদ?

হ্যা আবার না। আপনি কোন সাইটের কুকি বা কার বা কিসের কুকিজ ব্যাবহার করছেন সেটার ওপর নির্ভর করে। আপনি সেফ কুকিজ ব্যাবহার করলে সেটা আপনার জন্য নিরাপদ। তাই এক্সটারনাল কুকিজ ব্যাবহারে সচেতন থাকতে হবে।

কুকিজ এর কাজ কি

কুকিজ আমাদের ডাটাগুলা দ্রুত লোড নিতে সাহায্য করে। যেমন আমাদের লগইন ডিটেইলস কুকিজ ফাইলে সেভ হলে আমাদের সেইম একাউন্ট বার বার আর লগইন করা লাগেনা। এছাড়া কোন পেইজের কুকিজ আগে থেকে থাকলে সে পেইজ লোড নিতে টাইম কম লাগে।

কুকিজ ও টেম্পোরারি ফাইল কোথায় জমা হয় ?

কুকিজ বা টেম্পোরারি ফাইলগুলা আমাদের ইন্টারনাল স্টোরেজ এবং ক্লাউড স্টোরেজে জমা থাকে।

আশা করি আমাদের টিউটোরিয়াল টি আপনাদের ভালো লেগেছে। এই বিষয়ে আপনাদের কারো কওন প্রশ্ন থাকলে কমেন্ট করে জানাতে ভুলবেন না। আমি চেষ্টা করবো যত দ্রুত সম্ভব তার রিপ্লাই দেওয়ার জন্য। ভালো লাগলে বন্ধুদের সাথে শেয়ার করতে ভুলবেন না। ধন্যবাদ ❤

5/5 - (1 vote)

Leave a Comment